• E-paper
  • English Version
  • বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৩:১৬ পূর্বাহ্ন

কমরেড বদিউজ্জামান বাদল এর শোকসভা অনুষ্ঠিত

মোঃ আজিজুর রহমান, দিনাজপুর
  • আপডেটের সময় রবিবার ১৭ অক্টোবর, ২০২১

দিনাজপুর কালিতলা প্রেসক্লাবের হলরুমে বিকাল সাড়ে ৩টায় দিনাজপুর সঙ্গীত কলেজের অধ্যাপক ও বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি (সিপিবি) দিনাজপুর জেলা কমিটির সাধারন সম্পাদক এবং বাংলাদেশ কৃষক সমিতির কেন্দ্রীয় সদস্য, কলেজ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির অন্যতম নেতা অধ্যাপক বদিউজ্জামান বাদল এর শোকসভা অনুষ্ঠিত হয়।

কমরেড বদিউজ্জামান বাদল এর পূর্ণাঙ্গ জীবন বৃত্তান্ত স্মৃতিচারণের মধ্যে
দিয়ে শুরু হয় শোকসভার কাজ। সূচনা স্মৃতি চারণ করেন, এস এম চন্দন।

শোকসভায় উপস্থিত থেকে স্মৃতিচারণ করেন, বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি
(সিপিবি)’র কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড শাহীন ইসলাম, দিনাজপুর জেলা
শাখার সভাপতি আলতাফ হোসেন, বাংলাদেশের সাম্যবাদী আন্দোলনের দিনাজপুর জেলা শাখার সমন্বয়ক এএসএম মনিরুজ্জামান মনির, দিনাজপুর সঙ্গীত কলেজের অধ্যক্ষ দিনাজপুর নাট্য সমিতির সভাপতি চিত্র ঘোষ, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি সুলতান কামাল উদ্দিন বাচ্ছু, মহিলা পরিষদের সভাপতি কনিজ রহমানসহ দিনাজপুর জেলার বিভিন্ন রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিক ও সামাজিক সংগঠনের সদস্যবৃন্দ উপস্থিত থেকে কমরেড বদিউজ্জামান বাদল স্মৃতি চারণ করেন। ইকবাল হোসেন সিদ্দিকী সঞ্চালনায়, উক্ত শোকসভায় সভাপতিত্ব করেন, এডভোকেট মেহেরুল ইসলাম।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, কমরেড বদিউজ্জামান বাদল এর সহধর্মিনী এলিনা বেগম, তার একমাত্র সন্তান অনন্য ও পরিবারের সদস্যসহ সর্বস্তরের নেতা কর্মীগণ।

অধ্যাপক বদিউজ্জামান বাদল ১৯৬৭ সালের ২৪ অক্টোবর দিনাজপুরের সদর উপজেলা জন্ম গ্রহণ কতরেন। তিনি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শিক্ষা জীবন শেষে করে দিনাজপুর সঙ্গীত কলেজের ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে প্রভাষক হিসেবে যোগদান করেন। বাদল শুধু একজন প্রভাষক ছিলেন না, তিনি একজন দক্ষ নেতাও ছিলেন। যে্কোনো শিক্ষকদের অধিকার আদায়ে সক্রিয় ভূমিকা পালন করেন তিনি। ছাত্র জীবন থেকেই তিনি ছিলেন বামপন্থী, মার্কসবাদী চিন্তার মানুষ। জীবনের শেষ সময় পর্যন্ত লড়াই করেছেন, শ্রমিক, কৃষকের অধিকার আদায়ে। শোকসভার শুরুতেই কমরেড বাদলের স্মরণে ১ মিনিট নিরবতা পালন করেন।


এই ক্যাটাগরিতে আরো খবর