• E-paper
  • English Version
  • শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ০২:০৭ পূর্বাহ্ন

মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিবিজড়িত তেলিয়াপাড়ায় আজ ইত্যাদি

সাংস্কৃতিক প্রতিনিধি
  • আপডেটের সময় শনিবার ১১ ডিসেম্বর, ২০২১

বিটিভিতে প্রচারিত জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ইত্যাদি এবার ধারণ করা হবে হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার তেলিয়াপাড়া চা বাগানের মহান মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিসৌধ এলাকায়। আজ শনিবার (১১ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা ৬.৩০ মিনিটে অনুষ্ঠানটি ধারণ করা হবে। মাধবপুর উপজেলা প্রশাসন সূত্রে এ তথ্য জানা যায়।

জনপ্রিয় টিভি ব্যক্তিত্ব হানিফ সংকেতের সঞ্চালনা ও পরিচালনায় বাংলাদেশের সারাদেশের বিভিন্ন উল্লেখযোগ্য স্থান গুলোতে ইত্যাদি অনুষ্ঠান পরিচালিত হয়ে আসছে।
ইত্যাদিতে প্রচারিত গান নাটকের অংশ, কৌতুক ও বিভিন্ন অনুষ্ঠান ইতিমধ্যে জনগণের হৃদয়ে স্থান করে নিয়েছে। সর্বপ্রথম টিভিতে ফজলে লোহানী যদি কিছু মনে না করেন এ ধরনের একটি ব্যতিক্রমী বিনোদনবিষয়ক অনুষ্ঠানের যাত্রা করেছিলেন।

বিজ্ঞাপন


ফজলে লোহানীর মৃত্যুর পর এরই ধারাবাহিকতায় হানিফ সংকেত তার পরিচালনায় সঞ্চালনায় ”যদি কিছু মনে না করেন” এর আঙ্গিকে ”ইত্যাদি নামক”একটি রম্য ও বিনোদন মূলক অনুষ্ঠানের নাম প্রবর্তন করেন।
হানিফ সংকেতের পরিচালনার সঞ্চালনায় ইত্যাদি জনগণের হৃদয়ে স্থান করে নেয় খুব দ্রুততম সময়ের মধ্যে। সারা বাংলাদেশের দর্শনীয় ও পর্যটন স্থানগুলোতে গিয়ে সরাসরি ইত্যাদি অনুষ্ঠান পরিচালনা করা হয়। সেটি আরও বেশ জনপ্রিয়তা পায়।
এরই ধারাবাহিকতায় এবার ”ইত্যাদি” প্রচারিত ধারণ হবে হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার তেলিয়াপাড়া চা বাগানে। জনপ্রিয় অনুষ্ঠান ইত্যাদি হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলা তেলিয়াপাড়ায় ধারণের খবরে এলাকাবাসীর মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনা তৈরী হয়েছে।

নিয়মিত ইত্যাদি অনুষ্ঠান উপভোগ করেন শিক্ষক উম্মে কুলসুম বলেন, “মাধবপুরে ইত্যাদি অনুষ্ঠান সরাসরি প্রচারিত হবে, এটি আমাদের জন্য তথা মাধবপুর উপজেলা বাসীর জন্য একটি অহংকারের বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে।”

কথাসাহিত্যিক আখতার উজ্জামান সুমন বলেন, “হানিফ সংকেতের এমন উদ্যোগের কারণে আমরা গর্বিত, যেহেতু অনুষ্ঠানটি তেলিয়াপাড়া চা বাগানের মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিসৌধ নামক স্থানে অনুষ্ঠিত হবে, সে কারণেই অবশ্যই আমরা অনেক কিছু ইত্যাদি থেকে মেসেজ পাব। যা আমাদের পরবর্তী প্রজন্মের জন্য শিক্ষনীয় হয়ে থাকবে।”

গবেষক মোহাম্মদ সাইদুর রহমান বলেন, “মহান মুক্তিযুদ্ধে স্মৃতিবিজড়িত তেলিয়াপাড়ার ইতিহাস ও ঐতিহ্য নিয়ে আমি বেশ কয়েকবছর ধরে কাজ করছি। এখান থেকে মহান মুক্তিযুদ্ধে পরিকল্পনা তৈরি হয়েছে। আজ জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান “ইত্যাদি” এখানে ধারণ হবে জেনে আমি আনন্দিত। ইত্যাদির মাধ্যমে আমাদের হবিগঞ্জের ইতিহাস পৌঁছে যাক পৃথিবীজুড়ে।”


এই ক্যাটাগরিতে আরো খবর