• E-paper
  • English Version
  • বৃহস্পতিবার, ১৯ মে ২০২২, ০২:৪২ অপরাহ্ন

ভোলায় শিক্ষার্থীকে পিটিয়ে মোটরসাইকেল ছিনিয়ে নিলেন দুর্বৃত্তরা

আকতারুল ইসলাম আকাশ, ভোলা
  • আপডেটের সময় রবিবার ৩ এপ্রিল, ২০২২

ভোলায় মো. সিফাত হাওলাদার (২৬) নামে এক শিক্ষার্থীকে বেধড়ক মারধর করে মোটরসাইকেল ছিনিয়ে নিয়েছেন একদল দুর্বৃত্ত। সকাল সাড়ে এগারোটার দিকে সদর উপজেলা রাজাপুর ইউনিয়ন ক্লোজার বাজারে এ ঘটনা ঘটে।

আহত সিফাত হাওলাদার বর্তমানে ভোলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। সে ওই ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের মো. আলাউদ্দিনের ছেলে এবং ভোলা কলেজে অনার্স বাণিজ্য শাখার ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী।

এ ঘটনায় গতকাল শনিবার ভোলা সদর মডেল থানায় ৭ জনের বিরুদ্ধে একটি হত্যা চেষ্টা মামলা দায়ের করেছেন আহত সিফাতের বাবা। মামলা নম্বর-২১৮/২২। তবে মামলা দায়ের হলেও এখনও কোনো আসামিকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

মামলায় আসামিরা হলেন, ওই ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. হেলালের ছেলে মো. সজিব (২৭), মো. হাসিব (২৬) ও মো. বাবুসহ (২৮) আরও ৪ জন।

মামলায় বলা হয়েছে, সিফাত তাঁর বাড়ি থেকে মোটরসাইকেল যোগে ক্লোজার বাজারে যায়। সিফাত মোটরসাইকেল থেকে নামার আগেই আসামিরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তাকে এলোপাতাড়ি মারধর করে। একপর্যায়ে সিফাত জ্ঞান হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। এবং আসামিরা তাঁর মোটরসাইকেলটি ছিনিয়ে নিয়ে যায়।

পরে স্থানীয়রা ৯৯৯-এ কল দিলে ইলিশা পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. সিদ্দিকুর রহমান সিফাতকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

এসআই সিদ্দিকুর রহমান জানান, ৯৯৯-এ কল পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গিয়ে সিফাতকে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছেন। তবে ঘটনাস্থলে গিয়ে অভিযুক্ত কাউকেই পাননি।

ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন জানিয়েছেন, ৯৯৯-এ কল পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে এসআই সিদ্দিকুর রহমানকে পাঠিয়েছেন। এবং এ ঘটনায় শনিবার দুপুরে ভোলা সদর মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে৷ আসামিদের আটকের চেষ্টা চলছে বলেও জানান তিনি।


এই ক্যাটাগরিতে আরো খবর